যে কারনে রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশের শ্রেষ্ঠ ওসি হলেন মাসুদ পারভেজ

উত্তরবঙ্গ প্রতিদিনের সংবাদটি শেয়ার করুন

মহানগর প্রতিবেদক, উত্তরবঙ্গ প্রতিদিন :: রাজশাহী মেট্রোপলিটন পুলিশ-আরএমপি’র মাসিক অপরাধ পর্যালোচনা সভায় মাদক উদ্ধার ও ভালো কাজের জন্য শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ (ওসি) হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন কাশিয়াডাঙ্গা থানার এসএম মাসুদ পারভেজ।

 

কিন্তু কি কারনে শ্রেষ্ঠ ওসির সন্মাননা পেলেন মাসুদ পারভেজ ? 

 

কিশোর গ্যাঙ্গ নিয়ন্ত্রন, ছিনতাই চুরি প্রতিরোধ, মাঠে মাঠে প্রচলিত জুয়ার বোর্ড বন্ধকরন, মাদক প্রতিরোধে কমিউনিটি পুলিশিং এর মাধ্যমে তথ্য আদান প্রদান, তাছাড়াও ব্যাক্তি উদ্যোগে ২ জন মাদক ব্যবসায়ীদের পূনর্বাসনসহ সামাজিক সচেতনতা মূলক যে কোন কর্মকান্ডে তার অবাধ বিচরন। এছাড়াও বাল্য বিবাহ প্রতিরোধে সামাজিক সচেতনা, মাদকের কুফল সম্পর্কে জনগনকে সচেতন করাসহ বহুমূখী উদ্যোগ গ্রহন করেছেন কাশিয়াডাঙ্গা থানার ওসি এসএম মাসুদ পারভেজ

 

ওসি মাসুদ সম্পর্কে এলাকাবাসীর যা মন্তব্য 

 

রাজশাহী কাশিয়াডাঙ্গা এলাকার মজিদ নামের একজন  প্রাইমারী স্কুলের শিক্ষক বলেন – বর্তমান কাশিয়াডাঙ্গার ওসি মাসুদ পারভেজের কাছে গিয়েছিলাম একটি জমি সংক্রান্ত বিষয়ে অভিযোগ দিতে কিন্তু সব কিছু শোনার পর তিনি উভয়পক্ষকে নোটিশ দিয়ে স্থানীয় কাউন্সিলরসহ বিষয়টির সমাধান করে দেন যা ২০ বছরের বিবাদ মান সমস্যার অবসান ঘটে ।

 

এ বিষয়ে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের ১ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর রজব আলী বলেন – কাশিয়াডাঙ্গা থানার এসএম মাসুদ পারভেজ একজন মানবিক, সাহসী, দক্ষ ও বিচক্ষন পুলিশ অফিসার। তিনি অধিকাংশ ক্ষেত্রেই কমিউনিটি পুলিশিং এর মাধ্যমে যে কোন সামাজিক বিরোধ নিস্পত্তি করার চেস্টা করেন। এতে একদিকে যেমন দ্রুত সামাজিক সমস্যাগুলোর দ্রুত সমাধান হয়বন্যদিকে সামাজিক অপরাধ দ্রুত হ্রাস পায়।

 

 

রাজশাহী কাশিয়াডাঙ্গা থানার ওসি এসএম মাসুদ পারভেজকে শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ হিসেবে সন্মাননা স্মারকপত্র প্রদান করেছেন আরএমপির পুলিশ কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক
রাজশাহী কাশিয়াডাঙ্গা থানার ওসি এসএম মাসুদ পারভেজকে শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ হিসেবে সন্মাননা স্মারকপত্র প্রদান করেছেন আরএমপির পুলিশ কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক

 

কাশিয়াডাঙ্গা এলাকার রিক্সাচালক সোনারুল ইসলাম বলেন – কাশিয়াডাঙ্গায় রিক্সা রাখা নিয়ে প্রায় সময় পূরতবের ওসি স্যাররা আমাদের এসে লাঠিপেটা করত কিন্তু মাসুদ স্যার আসার পরে আমাদের রিক্সা, অটোরিক্সা রাখার ও থামার নির্ধারিত স্থান করে দিয়েছেন এতে আমাদের মত ব্রিক্সাচালকদের একদিকে যেমন সুবিধা করে দিতেছেন তেমনি কাশিয়াডাঙ্গা মোড়ে যানজটও অনেকাংশে কমে গিয়েছে।

 

করোনাকালে ওসির ভূমিকা নিয়ে কথা বলতে গিয়ে ৬৫ বছরেত আফরোজা বানু  উত্তরবঙ্গ প্রতিদিনকে বলেন- আমি রাস্তার ধারে কালাইয়ের রুটি বিক্রি করি।কিন্তু করোনার সময় রুটির দোকান বন্ধ রাখতে হয়। কিন্তু হঠাৎ দেখি আমার বাসায় ওসি মাসুদ স্যার পুলিশ দিয়ে চাল, আটা, তেলসহ খাবার অনেক কিছুই পাঠিয়েছিলেন। আমি তার প্রতি আজীবন কৃতজ্ঞ থাকব।

 

 

পুরস্কার পেলেন যাদের মাধ্যমে 

মঙ্গলবার (২৪ মে) আরএমপি সদর দপ্তরে অনুষ্ঠিত অপরাধ পর্যালোচনা সভায় অপরাধ দমন, মাদক উদ্ধার ও অন্যান্য কাজের সফলতার সাথে সম্পাদনের জন্য কাশিয়াডাঙ্গা থানার অফিসার ইনচার্জ এসএম মাসুদ পারভেজকে শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ হিসেবে সন্মাননা স্মারকপত্র প্রদান করেন আরএমপির পুলিশ কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক।

 

এসএম মাসুদ পারভেজ জানান, গত এপ্রিল মাসের আরএমপির সদর দপ্তরে অনুষ্ঠিত মাসের অপরাধ পর্যালোচনা সভায় অপরাধ দমন, মাদক উদ্ধার ও অন্যান্য কাজ সফলতার সাথে সম্পাদনের জন্য আমাকে সম্মাননা স্মারক ও সনদপত্র প্রদান করেন আরএমপির সুযোগ্য কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক স্যার। 

 

কাজে উৎসাহ প্রদান ও কাজের গতি বাড়াতে মাননীয় কমিশনার স্যার ব্যাক্তিগত উদ্যোগে প্রতি মাসেই সভার মাধ্যমে বিভিন্ন ইউনিটের ওসি, এসআই, এএসআইসহ পুলিশ কর্মকর্তাদের ভালো কাজের জন্য পুরষ্কার প্রদান করে থাকেন। এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন আরএমপির বিভিন্ন ইউনিটের কর্মকর্তারা।


উত্তরবঙ্গ প্রতিদিনের সংবাদটি শেয়ার করুন

Discover more from UttorbongoProtidin.Com 24/7 Bengali and English National Newsportal from Bangladesh.

Subscribe to get the latest posts to your email.

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *